ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৪ মে ২০২২ ||  জ্যৈষ্ঠ ৯ ১৪২৯

বৈঠকে বসছে পাক-ভারত ক্রিকেট বোর্ড, যে সুখবর আসছে

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ২০:২৮, ৫ এপ্রিল ২০২২  

সংগৃহীত

সংগৃহীত

ক্রিকেটের অচলাবস্থা কাটাতে অবশেষে বৈঠকে বসতে যাচ্ছে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দুই দেশ ভারত ও পাকিস্তান। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) চেয়ারম্যান রমিজ রাজা দুবাইয়ে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের (বিসিসিআই) কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে বসতে যাচ্ছে বলে খবর পাকিস্তানের জনপ্রিয় ক্রিকেট বিষয়ক ওয়েবসাইট ক্রিকেট পাকিস্তানের।

সংবাদমাধ্যমটির বরাতে জানা গেছে, আগামী ৭ এপ্রিল থেকে ১০ এপ্রিল পর্যন্ত দুবাইয়ে আইসিসির বৈঠক হওয়ার কথা রয়েছে। এর এক ফাঁকেই বৈঠকে বসবে দুই দেশের ক্রিকেটের নীতি নির্ধারকরা। যেখানে পাক-ভারত ক্রিকেটের ভবিষ্যৎ নিয়ে নতুন সিদ্ধান্ত আসতে যাচ্ছে।

এদিকে, আইসিসির এই বৈঠকেই পাকিস্তান, ভারত, অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ডকে নিয়ে নতুন টুর্নামেন্ট আয়োজনে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রস্তাব দিতে যাচ্ছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। এই সুপার সিরিজ থেকে বছরে সাড়ে ছয়শো মিলিয়ন মার্কিন ডলার রাজস্ব আয় হবে- এমনটাই দাবি পাক বোর্ডের।

নিরাপত্তা ইস্যুতে পাকিস্তান সফরে সব সময়ই শঙ্কা থাকে অন্য দেশের ক্রিকেটারদের। শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দলের বাসে সন্ত্রাসী হামলার পর থেকেই দেশটিতে ক্রিকেট দীর্ঘদিনের জন্য নির্বাসিত ছিল। ধীরে ধীরে ভাবমূর্তি কিছুটা ফিরলেও, ক’মাস আগে নিরাপত্তা শঙ্কার কথা বলে নিউজিল্যান্ড দলের দেশের ফেরার ঘটনায় আবারও বিপাকে পড়ে পিসিবি।

সুদিন ফেরাতে মরিয়া বোর্ডের নতুন চেয়ারম্যান রমিজ রাজা। অস্ট্রেলিয়া দলের পাকিস্তান সফরের পর যেন আত্মবিশ্বাস ফিরে পেয়েছেন তারা। ভাবমূর্তির পাশাপাশি আর্থিকভাবেও অবস্থান সুসংহত করতে চাইছে পিসিবি, চাইছে আইসিসিতে নিজেদের অবস্থান শক্ত করতে।

এমনিতে রাজনৈতিকভাবে ভারতের সঙ্গে বৈরী সম্পর্ক থাকলেও ক্রিকেট মাঠের পুরনো সম্পর্ক কাজে লাগিয়ে সৌরভ গাঙ্গুলির বোর্ডের সহযোগিতা চাইছেন রমিজ। তার চারদেশীয় নতুন টুর্নামেন্টের আইডিয়ার বড় অংশ জুড়ে রয়েছে ভারত। সিঙ্গেল লিগের টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টের প্রস্তাবিত বাকি দুই দল অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ড।

এখন পর্যন্ত এ আইডিয়া অতোটা জনপ্রিয়তা না পেলেও পাকিস্তান তাদের জায়গায় অনড়। আগামী সপ্তাহে দুবাইয়ে অনুষ্ঠেয় সভায় বিষয়টি নিয়ে আনুষ্ঠানিক প্রস্তাবের সব কাগজপত্র প্রস্তুত করছে তারা। যে টুর্নামেন্ট থেকে বছরে মোট সাড়ে ৫ হাজার কোটি টাকার বেশি রাজস্ব আয় করা সম্ভব বলে মনে করে পিসিবি। 

যা অংশগ্রহণকারী দলগুলোর মাঝে বণ্টনের পাশাপাশি আইসিসির সহযোগী দেশগুলোর ক্রিকেটের উন্নয়নেও কাজে লাগানোর আশ্বাস দিচ্ছে তারা।

সর্বশেষ
জনপ্রিয়